সর্বশেষ:
রূপগঞ্জে গুড়িয়ে দেয়া হলো বেলদী বাজারসহ অর্ধশতাধিক অবৈধ স্থাপনা সোনারগাঁও এক আতংকের নাম হালিম মেম্বার আপনার জীবনে এই পাঁচটি অভ্যাস প্রয়োগ করে জীবনকে বদলে ফেলুন রূপগঞ্জে স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্কুলে শিক্ষার্থীরা নবী হোসেনের পিতার মৃত্যুতে রূপগঞ্জ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ নেতা আনছর আলী`র গভীর শোক প্রকাশ বিডি ক্লিন রূপগঞ্জ পরিচ্ছন্নতার ১৮তম ইভেন্ট পালন । কায়েতপাড়া ও নগরপাড়া যুব সমাজের উদ্যোগে ডিগবার ফুটবল ফাইনাল ম্যাচ-২০২১ ইং অনুষ্ঠিত। রূপগঞ্জে রংতুলি ব্লাড ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে ফ্রি রক্তের গ্রুপ নির্ণয় অনুষ্ঠিত রূপগঞ্জে বিদ্যালয়ের পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজে স্বেচ্ছাসেবীরা রূপগঞ্জে আরও একজনের মাথার খুলি ও হাড় উদ্ধার
September 17, 2021, 8:09 pm
শিরোনাম:
পরীক্ষা মূলক সম্প্রচার চলছে

Categories

আপনার জীবনে এই পাঁচটি অভ্যাস প্রয়োগ করে জীবনকে বদলে ফেলুন

রূপগঞ্জ বার্তা ডেস্ক 83 বার পঠিত
Update : Monday, September 13, 2021

রূপগঞ্জ বার্তা ডেস্কঃ আমাদের জীবনে যা যা ঘটে তার পেছনে একটা কারণ আছে। আর সেই জন্যেই আমাদের সাথে ভালো মন্দ ঘটনা ঘটে। আর যে কারণে ঘটে সেটা আর কিছুই নয় বরং আমাদের অভ্যাস ।

এই অভ্যাস টাই আমাদের লাইফে সাকসেস এবং ফেইলর এনে দেয় খুব কমই মানুষ আছে যারা জীবনে সফল হতে পারে। কারণ তাদের অভ্যাস থাকে বেশ গুরুত্ব দেয়। আজ আমি লাইফে সাকসেস এনে দিতে পারে এমন পাঁচটি অভ্যাসের কথা আপনাদের সাথে শেয়ার করছি। এগুলো ব্রায়ান ট্রেসি তার লেখা বিখ্যাত বই Million Dollar Habits এ বিস্তারিতভাবে বলেছেন।

Habit-1: High Self Concept…. কেউ আপনাকে আশীর্বাদ বা সাবাস দিলে আপনার কনফিডেন্স যেমন বেড়ে যায় তেমনি কেউ আপনাকে একটা খারাপ কথা বললে বা রিঅ্যাকশন দিলে আপনার কনফিডেন্স কমে হয়ে যাবে এটাই স্বাভাবিক।.

জীবনে পজিটিব এবং নেগেটিভ দুটি প্রভাব পড়ছে।ধরা যাক আমাদের ব্রেইনের কম্পিউটার এবং self-concept এর মাস্টার প্রোগ্রাম যা ব্রেনের অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে কাজ করে। Self Concept এ আমাদের কাজ ভাবনা এবং অর্জন গুলো নির্ভর করে। কারণ জীবনে ততটুকু অর্জন করতে পারবেন যত টুকু self-concept সে ব্যাপারে আপনার ব্রেইন কে সাপোর্ট করবে।

একটা ছোট্ট উদাহরণ দিচ্ছি, আপনি যদি কোনো স্টেজে বক্তৃতা দিতে সাহস না পায় তার মানে আপনার Self কনসেপ্ট আপনাকে পারবেনা বলে ভয় দেখাচ্ছে। কিন্তু আপনি যদি নিজে একবার সাহস করে ফেলেন তবে দেখবেন সেটা আপনার self-concept গ্রহণ করছে এবং আপনি পাচ্ছেন। আপনি যদিও এই ব্যাপারে অভ্যস্ত নন। তাই নিজের ধারণাকে হাই রাখতে হবে এবং এতে করে কঠিন কাজ সহজ হয়ে যাবে।

Habit-2: Self Discipline…. ডিসিপ্লিন নিয়ে সব সময় সবার নেগেটিভ ধারণা থাকে। কারণ ছোটবেলা থেকে বেশির ভাগ ডিসিপ্লিন জোর করে শিখানো হয়। তবে সত্যিকার অর্থে পৃথিবীতে যেন অনেক কিছু অর্জন করেছেন তারা ডিসিপ্লিন মানতেন। Self Discipline কেন প্রয়োজন তার ব্যাখ্যা হলো

self discipline এমন একটি শক্তি সামর্থ্য যা তোমার কি করা দরকার কখন করা উচিত তোমাকে সেটা করতে সাহায্য করে। যদিও সেই কাজ করতে তোমার মন চায় বা না চায় এতে কিছু আসে যায় না।

ধরা যাক আমি প্রতিদিন 30 মিনিট ব্যায়াম করব বলে ভাবছি কিন্তু করছি না। এর জন্য যতই মোটিভেশনাল ভিডিও বা আর্টিকেল পড়ি তার চেয়ে বেশি কাজ করবে Self Discipline.. কারণ মোটিভেশন দেখে একদিন এক সপ্তাহ ঠিক ব্যায়াম করব। কিন্তু তারপর যা ছিল তাই। কিন্তু Self Discipline আমাকে সারাজীবন কাজ করতে সাহায্য করবে। এতে করে সেলফ কনফিডেন্স বেড়ে যাবে।

তাই Self Discipline আমাদের সকল কাজ করতে সাহায্য করে এবং আমাদের সামনে এগিয়ে নিয়ে যায়। তাই সবার নিজস্ব নিয়মে তৈরি করে চলা প্রয়োজন।

Habit-3: Feel Mind With Mental Protein… আমাদের স্বাস্থ্যের মতো আমাদের মনের ও প্রোটিন প্রয়োজন। তবে এই প্রোটিন খাবার প্রোটিন নয় বরং এমন একটা জিনিস যা মন দিন রাত নিতে থাকে। অবশ্য এটাকে নরমালি ইনফর্মেশন অথবা নলেজ বলে।

এই নলেজ এবং ইনফরমেশন সব সময় পজিটিভ দেওয়া উচিত নাকি নেগেটিভ। যদি আপনি আপনার মনকে পজেটিভ ইনফরমেশন দেন তবে আপনার মন আপনাকে সকল কাজে পজিটিভলি সাহায্য করবে। আর যদি বিভিন্ন আনঅফিসিয়াল মিডিয়ার মত নেগেটিভ ইনফরমেশন দেন তবে আপনার কি হবে ভাবুন।

যেমন আপনি এই মুহূর্তে এই আর্টিকেলটি পড়ছেন আপনার পজেটিভ ইনফর্মেশন গেইন করার জন্য আবার অন্যদিকে অন্য কেউ এই আর্টিকেল বাদ দিয়ে অন্য একটি অপ্রয়োজনীয়’ আর্টিকেল পড়ছে যেটা কখনো তার কাজে আসবে না এবং সেটা সে দেখছে কন্টিনিয়াসলি আসে তার মনকে নেগেটিভ ইনফর্মেশন দিচ্ছে। এবার আপনি ভাবুন কোনটা বেটার। তাই সাকসেসফুল হতে হলে মারকেটিং ইনফর্মেশন মানে প্রোটিন নিতে হবে।

Habit-4: Daily Goal Setting… আমাদের জীবনের সময় খুব গুরুত্বপূর্ণ। যদিও আমরা সময়কে সঠিকভাবে ব্যবহার করিনা। তবে জীবনে সাকসেস করতে হলে অবশ্যই সময়কে মূল্য দিতে হবে।

প্রতিদিন রাতে ঘুমানোর আগে পরপর দিন কি কি করতে হবে তা সব গুলো লিখে রাখুন। এবং সকাল হওয়ার পর আপনি সেটা দেখে নিন।তবেই আপনার সময়ের সঠিক ব্যবহার করতে পারবেন। আর এটাই আপনার জীবনের সাকসেস এনে দিবে।

Habit-5: Health Orientation… সাকসেসফুল এবং আনসাকসেসফুল মানুষের মধ্যে একটা বড় পার্থক্য এটাই যে, সাকসেসফুল মানুষ সব সময় তার শাস্তির খেয়াল রাখে। অন্যদিকে আনসাকসেসফুল মানুষ তার স্বার্থের কোন খেয়াল রাখে না।

সাকসেসফুল মানুষ নিয়মিত ব্যায়াম, ইয়োগা, মেডিটেশন এগুলো করে। কিন্তু আনসাকসেসফুল মানুষে গুলো করার সময় পায়না। কারণ তার সময় বেশিরভাগ আজেবাজে কাজে ব্যস্ত থাকে।

এর ফলে এরা বেশির ভাগ সময় বিভিন্ন সমস্যায় ভোগেন ডাক্তারের কাছে সময় ব্যয় ও বহু টাকা নষ্ট করেন। স্বাস্থ্য যদি ঠিক না থাকে তবে ইনকাম আসবে কিভাবে। তাই সব কাজের সাথে সাথে স্বাস্থ্যের জন্য প্রয়োজনীয় কাজগুলো করতে হবে। সময়মতো পুষ্টিকর খাবার খাওয়া পর্যাপ্ত ঘুম এবং ব্যায়াম করা সুস্বাস্থ্যের জন্য প্রয়োজন এতে যেমন সুস্থ থাকা যাবে অন্যদিকে জীবনের সফলতা এনে দেবে।

এই পাঁচটি অভ্যাস গড়ে তুললে আপনি অবশ্যই জীবনে সাকসেস হতে পারবেন।

Our Facebook page


এই বিভাগের আরও খবর